Image Not Found!
ঢাকা   ১৪ এপ্রিল ২০২১ | ১ বৈশাখ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

সর্বশেষ সংবাদ

  টঙ্গীবাড়িতে প্রতারক চক্রের তিন সদস্য আটক। (2)        চাঁদ দেখা গেছে আগামীকাল বুধবার থেকে রোজা (2)        নকলায় হাজারধিক মাস্ক ও সাবান বিতরণ করলেন 'প্রস্ফুটিত শেরপুর' ফেইসবুক গ্রুপ (95)        জরুরী প্রয়োজনে যাতায়াতের নিশ্চিত করতে বাংলাদেশ পুলিশের উদ্যোগে চালু হয়েছে মুভমেন্ট পাস (3)        খালেদা জিয়ার আরোগ্য কামনায় দোয়া মাহফিলের আয়োজন করেছে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী যুবদল, ইতালী শাখা (4)        আজ বিকেল তিনটা পর্যন্ত টাকা জমা ও উত্তোলন করতে পারবেন (2)        ইতালিতে প্রবাসী নারীদের আয়োজনে নারী নেত্রী মেহেনাস তাব্বাসুম শেলির তত্বাবধায়নে রোমের বিভিন্ন স্হানে বৈশাখ উদযাপন (4)        এক সপ্তাহের সর্বাত্মক লকডাউনে যা বন্ধ থাকবে জেনে নিন (3)        রাজধানী ছাড়তে শুরু করেছে নিম্ন আয়ের মানুষ (2)        দেশে সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড (2)      

টিকার বিকল্প উৎসের সন্ধানে একাধিক উদ্যোগ

নিউজ ডেস্ক : ভারত রফতানি স্থগিত করায় টিকা পাওয়া নিয়ে বাংলাদেশের অনিশ্চয়তা তৈরি হয়েছে। প্রথম ও দ্বিতীয় ধাপে টিকা পেলেও তৃতীয় ধাপে কোনো টিকাই পাওয়া যায়নি। এতে করে টিকা পেতে বিকল্প উৎসের সন্ধান করছে বাংলাদেশ। এজন্য সরকারি-বেসরকারিভাবে একাধিক উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। তবে ইউএনডিপির অর্থায়নে জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকা ও উন্মুক্ত আন্তর্জাতিক দরপত্রের মাধ্যমে তিন কোটি করে ডোজ কেনার উদ্যোগ দ্রুত সফল হওয়ার সম্ভাবনা নেই। টিকা উৎপাদনের কাঁচামালের জন্যে সরকারের পক্ষ থেকে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকাকে এবং ওষুধ শিল্প উদ্যোক্তাদের পক্ষ থেকে অন্য কয়েকটি টিকা উদ্ভাবকদের কাছে পাঠানো চিঠিরও সাড়া মেলেনি। এ ছাড়া ইনসেপ্‌টা ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেড টিকা তৈরিতে সক্ষম হলেও কাঁচামাল পাচ্ছে না। এসব উদ্যোগে এখনও সাড়া না মিললেও টিকার বিকল্প উৎস পাওয়ার আশা প্রকাশ করে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেন, বাংলাদেশে ওষুধের মান পরীক্ষার জন্য ঔষধ প্রশাসন অধিদফতরের ল্যাবের কেমিক্যাল অংশ গত বছরের মার্চে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদন পেয়েছে। তবে বায়োলজিক্যাল অংশের কাজ বাকি আছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে এটি করে দেয়ার জন্য চিঠি দেয়া হয়েছে। কারণ বিদেশে রফতানি করতে হলে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদিত ল্যাবে ওই টিকা তৈরি হতে হবে। টিকার বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশিদ আলম বলেন, প্রথম ডোজের টিকাদান কার্যক্রম বন্ধ হবে না। প্রথম ডোজের পাশাপাশি দ্বিতীয় ডোজের টিকাদান কার্যক্রমও বৃহস্পতিবার শুরু হবে। টিকার ৩০ লাখ ডোজ এপ্রিলের মধ্যে সরবরাহের জন্য সেরামের কাছে চিঠি পাঠানো হয়েছে। আমাদের হাতে যে পরিমাণ টিকা মজুদ আছে তা বিতরণের মধ্যেই মে মাসে চলে আসবে এবং ভারতের রফতানি নিষেধাজ্ঞাও হয়তো উঠে যাবে।