Image Not Found!
ঢাকা   রবিবার ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ | ২৩ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

সর্বশেষ সংবাদ

  নালিতাবাড়ীতে এসএসসি ৯৭ ব্যাচের ছাত্র-শিক্ষক মিলন মেলা ও সম্মাননা প্রদান (95)        পাখি সংরক্ষণে অবদান রাখায় শেরপুর বার্ড কনজারভেশন সোসাইটি পেলেন বিশেষ পুরস্কার (91)         শেরপুরে পরিবহন মালিক, চালক,শ্রমিক, ও হেলপারদের নিয়ে ট্রাফিক আইন সচেতনতামূলক কর্মশালা অনুষ্ঠিত (95)        কলমাকান্দায় ভুট্টা চাষের স্বপ্ন দেখছেন কৃষকরা (94)        অবশেষে জামিনে মুক্ত কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সাবেক নেতা পাইলট (94)        শেরপুরে জাতীয় গ্রন্থাগার দিবস উপলক্ষে বই পাঠ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত (95)        কলমাকান্দায় নৌকা ডুবে এক ব্যক্তি নিখোঁজ (95)        শ্রীবরদীতে ফাঁসিতে ঝুঁলে শিক্ষার্থীর আত্বহত‍্যা (95)        ঘুমানোর সময় আলো জ্বালিয়ে রাখলে আমাদের শরীরের অনেক ক্ষতি হতে পারে (90)        সেরা ১০০ জন ফুটবলারের তালিকায় মেসি নাম্বার ওয়ান (84)      

মুভমেন্ট পাস : চিকিৎসকদেরও ছাড়ছে না পুলিশ

নিউজ ডেস্ক : পুলিশের আইজিপি বেনজির আহমেদের নির্দেশনা উপেক্ষা করে চিকিৎসকদের চলাচলে বাধা দেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে দায়িত্বরত পুলিশ সদস্যরা ‘মুভমেন্ট পাস’ নেই কেন- এমন অজুহাতে পথচলায় বাধা দিচ্ছে বলে ফেসবুক পোস্টে জানিয়েছেন বেশ কয়েকজন ভুক্তভোগী চিকিৎসক।

মঙ্গলবার (১৩ এপ্রিল) পুলিশ প্রধান জানিয়েছিলেন, লকডাউন চলাকালে চিকিৎসক, সাংবাদিকসহ সরকারি জরুরি সেবায় নিয়োজিত ব্যক্তিদের কোনো মুভমেন্ট পাস নিতে হবে না। ওই অনুষ্ঠানে বেনজীর আহমেদ বলেন, ‘সাংবাদিকদের এই পাস নিতে হবে না। এছাড়া বিভিন্ন হাসপাতালে কর্তব্যরত চিকিৎসক, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য, ফায়ার সার্ভিস, পানি সরবরাহ প্রতিষ্ঠানে কর্মরত ব্যক্তি, বিদ্যুৎ বিতরণ প্রতিষ্ঠানে কর্মরত ব্যক্তি, পৌরসভা ও সিটি করপোরেশনের বর্জ্য অপসরণকারী সদস্যসহ এসব প্রতিষ্ঠানে কর্মরত সদস্যরা জরুরি প্রয়োজনে বের হতে পারবেন।’ যাদের একান্তই বাইরে যাওয়া প্রয়োজন হবে, তাদের জন্য মুভমেন্ট পাসের ব্যবস্থা রয়েছে।

পুলিশের আইজিপি বেনজির আহমেদের নির্দেশনা তৃণমূল পুলিশ মানছেন না অভিযোগ করে একজন ফেসবুকে লিখেন, ‘আজ সকালে আমাদের গাড়ি সাইনবোর্ডের একটু পরে থামায় এবং ৩০০০ টাকা জরিমানা করে। আমার হাসবেন্ডের সাথে তার কর্মস্থলের আইডি কার্ড ছিল। স্কয়ার হসপিটালের ট্রান্সপোর্ট অবশ্যই মুন্সীগন্জ আসবে না। আর হঠাৎ করে একটা অ্যাপ বানিয়ে বলল, নেন মুভমেন্ট পাস নামক সার্কাস নিয়া বাইর বের হবেন, যেখানে তাদের ওয়েবসাইটেই ঢোকাই যায় না। এমতাবস্থায় ডাক্তাররা কি সারাদিন ডিউটি বাদ দিয়ে পাস পাস খেলবে নাকি????’ আরেকটি পোস্টে এক চিকিৎসক ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, ‘কার্ড শো করে বারবার বলার পরেও আমাকে রিকশা নিয়ে আসতে দেয়নি। বাধ্য হয়ে হেটে কিছুদূর গিয়ে আরেকটা রিকশা নিতে হয়েছে। অফিস, আদালত, গার্মেন্টস খোলা রেখে রিকশায় চলাফেলা বাধা দেয়ার যুক্তি কি? আমরা কি পাখির মতো উড়ে উড়ে অফিস করবো?’ আরেকজন তার ফেসবুকে লিখেন, ‘কুর্মিটোলার ডাক্তার-নার্সদের গাড়ি দুই ঘণ্টা আটকে রেখেছে পুলিশ। মুভমেন্ট পাস নেই বলে। তাদের সামনে দিয়েই “প্রেস” লেখা সাংবাদিকদের গাড়ি চলে গেছে, তথাকথিত ফ্রন্টলাইনাররা চেয়ে চেয়ে দেখেছে।’